শেশের বালি

হঠাৎ দামকা হওয়াতে সাম্বিত ফিরে এল রিমার। সন্ধে হবার আগের লাল সূর্যের আলোতে হাল্কা ঘাম সারা মুখে । ঠাণ্ডা হাওয়া দিতে শুরু করেছে । সালয়ারের ওড়না দিয়ে মুখ মুছে নিয়ে বাড়ির দিকে চলতে শুরু এবার রিমার।জুহু বিচে সন্ধে নামতে শুরু করেছে এখন।

অর্কর সঙ্গে প্রথম দেখা আট বছর আগে, ট্রেন-এ করে বাঙ্গালরে আসার সময় । রিমা তখন কলেজে আর অর্ক সবেমাত্র চাকরি শুরু করেছে । পাশাপাশি সিট ছিল সঙ্গে একাটা ফামিলি , বাচ্ছা দুটোর সাথে খুব তাড়াতাড়ি মিশে গিয়েছিল অর্ক। সন্ধে বেলায় প্রথম কথা, মানে আলাপ প্রথম বার। লম্বা -মাঝারি রঙ কিন্তু চোখ দুটি ভীষণ চঞ্চল , বলতেই হবে কথায় ভরা ।

অনেক রাত্রি অব্দি আড্ডা মারলাম সবাই মিলে । কলকাতার ছেলে অর্ক, হাতিবাগানের আর আমি সাউথ কলকাতার আর বাকিরা বর্ধমানের। পেশাতে সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার , এক্ বছর হয়েছে চাকরিতে। পরের দিন সারাটা দিন ধরে আড্ডা আর খাওয়া । কাল ভোরে ট্রেন পৌঁছুবে তাই আজ তাড়াতাড়ি সবাই বিছানায়।

সকালে বাঙ্গালরে বেশ হাল্কা ঠাণ্ডা। কোচ থেকে নামতেই সায়ন্তনি আর পল , নিতে এসেছে আমাকে। আমি হোস্টেলে থাকি এখানে, সঙ্গে আর পাঁচজন, আমি আর সায়ান্তনি বাঙালি বাকিরা কেউ বিহার বা মহারাষ্ট্র থেকে কিন্তু আমাদের গলায় গলায় ভাব। আমরা লাস্ট ইয়ার ডেন্টালের ,সবাই্ মিলে ব্যাস্ত তিন্ মাস পরেই ফাইনাল , নাওয়া খাওয়ার সময় নাই।

পরীক্ষা ভালই হয়েছে , কয়েকদিন পর থেকে কলেজে ক্যাম্পাস শুরু , নিজেকে খানিকটা হাল্কা মনে লাগছে । দুপুরে ঠিক হল কি যে আজকে আমরা সিনেমা যাব সবাই মিলে , উইন্ডো শপিং করতে যাদের ভালো লাগে তাদের মধ্যে আমি একজন সুতরাং সবাই আমরা একসঙ্গে শপিংমলে।

সিনেমা দেখে বেরিয়ে আইস্ক্রিম খাচ্ছি সবাই মিলে সঙ্গে তুমুল আড্ডা চলছে হঠ।থই কারোর একটা আওআজ। ……..হাই…
(Cont Next week)

Share with:

  • IndianPad
  • del.icio.us
  • StumbleUpon
  • Facebook
  • Mixx
  • Digg
  • Google Bookmarks
  • Live
  • MySpace
  • Yahoo! Bookmarks
  • LinkedIn
  • email
  • Print

Leave a Reply